May 27, 2024, 6:58 pm
সর্বশেষ:
মার্কিন ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর সাংবাদিক ও প্রবাসী কনসালটেন্ট এজাজ মাহমুদের সঙ্গে বাংলাদেশ প্রেসক্লাব ইউএইর মতবিনিময় এখন একটাই কাজ কুলাঙ্গার তারেক জিয়াকে দেশে ফেরত নিয়ে আসা: প্রধানমন্ত্রী শার্শায় ফসলি জমির মাটি বিক্রির সিন্ডিকেট বেপরোয়া, জড়িত খোদ ইউপি সদস্যরা ডাকাতির মামলায় ঢাবি ছাত্রলীগের দুই নেতা গ্রেফতার বৈশ্বিক চাহিদা অনুযায়ী প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ জনশক্তি তৈরি করা হবে: প্রবাসী প্রতিমন্ত্রী বঙ্গবাজার পাইকারি বিপনী বিতান ও তিনটি উন্নয়ন প্রকল্পের নির্মাণ কাজের উদ্বোধন ৮০ বছর পর মিলল মার্কিন সাবমেরিনের ধ্বংসাবশেষ সোনারগাঁয়ে পরকীয়ার জেরে স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ, স্বামী আটক কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড

সরকার স্বাধীনতার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে: মির্জা ফখরুল

  • Last update: Thursday, May 4, 2023

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, এই সরকার আজকে স্বাধীনতার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে। এই সরকার আজকে গণতন্ত্রের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে। এই সরকার সাধারণ মানুষের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে। তাই আওয়ামী লীগ আজকের গণশত্রুতে পরিণত হয়েছে।

ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে আজ বৃহস্পতিবার (৪ মে) দুপুরে সাবেক মন্ত্রী সুনীল গুপ্তের ১৫তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে ভাসানী অনুসারী পরিষদ আয়োজিত স্মরণসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন।

বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘যে সরকার মানুষের চোখের ভাষা বুঝতে পারে না, যে সরকার দেওয়ালের লিখন বুঝতে পারে না, যে সরকার মানুষের প্রয়োজন বুঝতে পারে না, তাকে আমরা গণশত্রু ছাড়া কি ভাবতে পারি।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘স্বাধীনতার যুদ্ধে আমাদের যে আশা ছিল, আকাঙ্ক্ষা ছিল, একটি গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা থাকবে সেটাকে ধ্বংস করে দিয়ে আওয়ামী লীগ সম্পূর্ণভাবে একদলীয় শাসন ব্যবস্থার দিকে এগিয়ে চলেছে; সেই পুরোনো কায়দায় ১৯৭৫ সালে যে বাকশাল প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন দেখেছিল। আজকে যে যুবক সমাজ তারা কিন্তু মুক্তিযুদ্ধ দেখেনি, তারা এমন কিছু দেখছে আমাদের মুক্তিযুদ্ধের যে স্বপ্ন সবকিছু হরণ করে নেওয়া হচ্ছে। মানুষকে স্তব্ধ করে দেওয়া হচ্ছে, যারা গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করছে সংগ্রাম করছে, তাদেরকে চরম বিপর্যয়ের মধ্যে অতিক্রম করতে হচ্ছে।’

বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘আওয়ামী লীগ একটি পুরোনো দল কিন্তু এই দলের যিনি প্রতিষ্ঠাতা তাকেও তারা বাদ দিয়ে দিয়েছেন। কারণ তার চিন্তা চেতনার সাথে পরবর্তী আওয়ামী লীগের কোনো মিল ছিল না। আজকে যারা আওয়ামী লীগের সাথে জড়িত আছেন, তাদের অধিকাংশই ১৯৭১ সালের স্বাধীনতার সাথে যুক্ত ছিলেন না। এখন যারা স্বাধীনতার বিরোধী শক্তি হিসেবে আমাদের দিকে আঙুল তুলতে চান তাদেরকে প্রশ্ন করতে চাই, আপনারা কি বলতে পারবেন আপনাদের মধ্যে কারা কারা মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। আমাদের সাথে যারা লড়াই-সংগ্রাম করছেন কাজ করছেন তাদের অধিকাংশ মুক্তিযুদ্ধের সময় সরাসরি অংশগ্রহণ করেছেন।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘এদেশের মানুষ ১৯৭১ সালে স্বাধীনতার যুদ্ধের মধ্য দিয়ে বিজয় অর্জন করেছে। এদেশের মানুষ স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করে পতন ঘটিয়েছে, এদেশের মানুষ লড়াই করছে সংগ্রাম করেছে। এ লড়াইয়ে অবশ্যই গণতন্ত্রের বিজয় হবে। এ লড়াইয়ে অবশ্যই যারা গণতন্ত্রের পক্ষে সংগ্রাম করছেন তাদের বিজয় হবে। যারা গণতন্ত্রের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে দানবীয় ফ্যাসিবাদ তারা পরাজিত হবে।’

সভায় সভাপতিত্ব করেন ভাসানী অনুসারী পরিষদের আহ্বায়ক শেখ রফিকুল ইসলাম বাবলু। আয়োজক সংগঠনের সদস্য সচিব হাবিবুর রহমান বিজুর সঞ্চালনায় এতে বক্তব্য দেন জাতীয় পার্টির একাংশের চেয়ারম্যান মোস্তফা জামাল হায়দার, গণফোরামের একাংশের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী, বিএনপির মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপন, বিএনপি নেতা জয়ন্ত কুমার কুণ্ডু প্রমুখ।

Drop your comments:

Please Share This Post in Your Social Media

আরও বাংলা এক্সপ্রেস সংবাদঃ
© 2023 | Bangla Express Media | All Rights Reserved
With ❤ by Tech Baksho LLC